অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, বুধবার, ২২শে সেপ্টেম্বর ২০২১ | ৭ই আশ্বিন ১৪২৮


চার দিন ধরে নিখোঁজ ভোলার আট জেলে


বাংলার কণ্ঠ প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১১ই সেপ্টেম্বর ২০২১ সকাল ০৭:০৩

remove_red_eye

৩৫

বাংলার কণ্ঠ প্রতিবেদক : বঙ্গোপসারে মাছ ধরার ট্রলার ডুবির ঘটনায় চার দিন ধরে আট জেলে নিখোঁজ রয়েছেন। গতকাল জীবিত উদ্ধার হওয়া দুই জেলে ভোলায় ফিরে এসে এ তথ্য জানিয়েছেন। নিখোঁজ এবং ফিরে আসা জেলেদের বাড়ি ভোলা সদর উপজেলার ভেলুমিয়া ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে বলে জানিয়েছেন ওই ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান মহসিন খান।
মহসিন খান জীবিত উদ্ধার হয়ে ফিরে আসা সিরাজ ও মজিদ মাঝির বরাত দিয়ে জানান, তাদের গ্রামের ১১ জন জেলে নীরব মাঝির নেতৃত্বে নীরব মাঝির ফিশিং বোট (মাছ ধলার নৌকা) নিয়ে গত ৫ সেপ্টেম্বর ইলিশ শিকারের জন্য বঙ্গোপসারের মাছ শিকার করতে গিয়েছিলেন। পরের দিন গভীর রাতে হঠাৎ ঝড়ের কবলে পড়ে তাদের ফিশিং বোটটি ডুবে যায়। সিজার এবং মজিদ  ভাসতে ভাসতে বক্সবাজারের মনিপুরা পয়েন্টে চলে যান। এর পরদিন মঙ্গলবার অপর একটি ফিশিং বোট তাদের উদ্ধার করে। কিছুটা সুস্থ হওয়ার পর গতকাল বাড়ি ফিরে এলে ট্রলার ডুবির ঘটনাটি জানাজানি হয়।
স্থানীয় জনপ্রতিনিধি মহসিন খান আরও জানান, ডুবে যাওয়া ফিশিং বোটে থাকা নীরব মাঝি, বজলু মাঝি, শহীদ মাঝি, ইউসুফ মাঝি, রুবেল মাঝি, রফিক মাঝি ও সিরাজ মাঝির সন্ধান এখনো পাওয়া যায়নি। এদিকে চরফ্যাশন শ্যামরাজ মাছঘাটের আড়তদার আব্বাছ উদ্দিন সাংবাদিকদের জানান, নীরব মাঝির বোটে থাকা ১১ জেলের মধ্যে তিন জেলে উদ্ধার হয়েছে। তবে উদ্ধার হওয়া একজনের নাম জানা সম্ভব হয়নি। এ ছাড়া অপর আট জেলের কোনো সন্ধান গতকাল সন্ধ্যা পর্যন্ত পাওয়া যায়নি।