অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, শুক্রবার, ৩রা জুলাই ২০২০ | ১৮ই আষাঢ় ১৪২৭


ভোলায় এবার কলেজ ছাত্র হত্যা, মাটি খুঁড়ে লাশ উদ্ধার


অচিন্ত্য মজুমদার

প্রকাশিত: ২২শে জুন ২০২০ বিকাল ০৩:০৪

remove_red_eye

৪৭৩৯

অচিন্ত্য মজুমদার::
ভোলায় ঔষধ ব্যবসায়ী হত্যার রেশ কাটতে না কাটতে এবার বোরহানউদ্দিনে কলেজছাত্র সুমন অপহরণের দুইদিন পর মাটি খুঁড়ে তার লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ সোমবার দুপুরে উপজেলার পক্ষিয়া ইউনিয়নে একটি পানের বরজ থেকে লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত সুমন ওই এলাকার মফিজুল ইসলামের ছেলে ও ভোলা সরকারি কলেজের অনার্স পড়ুয়া ছাত্র।

এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকায় পুলিশ মিঠু নামে এক যুবককে আটক করেছে। তার দেয়া তথ্য অনুযায়ী সুমনের লাশ উদ্ধার করা হয়।

বোরহানউদ্দিন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনামুল হক জানান, গত ২০ জুন সন্ধ্যায় সুমন বন্ধুদের সাথে আড্ডা দিচ্ছিলেন। এসময় একটি ফোন আসলে সুমন সেখান থেকে চলে যায়। এরপর থেকে তাকে আর খুঁজে পাওয়া যায়নি। আজ সোমবার দুপুরে পুলিশ সুমনের ফোন কল ট্যাকিং করে মিঠু নামে এক যুবককে আটক করে। তার দেয়া তথ্য অনুযায়ী পুলিশ উপজেলার পক্ষিয়া ইউনিয়নের একটি পানের বরজ থেকে মাটি খুঁড়ে সুমনের মরদেহ উদ্ধার করে।

ওসি আরো জানান, পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে আটক মিঠু হত্যার বিষয়টি স্বীকারে করেছে। তবে কি কারণে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে তার কারণ উদঘাটনে তদন্ত করছে পুলিশ।

এদিকে ভোলার দক্ষিণ দিঘলদী ইউনিয়নের বটতলায় গত শনিবার রাতে প্রবীর নামে এক ঔষধ ব্যবসায়ীকে হত্যা করে তার সাথে থাকা পাঁচ লাখ টাকা ও ১০ ভরি স্বর্ণালঙ্কার ছিনতাই করা হয়। এর এক দিন না যেতেই বোরহানউদ্দিনে কলেজছাত্র হত্যার ঘটনায় পুরো এলাকায় জুড়ে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়।