অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, রবিবার, ২৫শে জুলাই ২০২১ | ১০ই শ্রাবণ ১৪২৮


ভোলা-লক্ষীপুর রুটে ৫ দিনেও স্বাভাবিক হয়নি ফেরি চলাচল


বাংলার কণ্ঠ প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ৩০শে মে ২০২১ রাত ১১:১৬

remove_red_eye

৫৯

বাংলার কণ্ঠ প্রতিবেদক : ভোলায় ঘূর্ণিঝড় ইয়াস আর চন্দ্রগহণসহ পূর্ণীমার জোর অতিজোয়ারে ঘাট এলাকা প্লাবিত হওয়ায়, ভোলা-লক্ষীপুর রুটে ৫ দিন গত রোববারও ফেরি চলাচল স্বাভাবিক হয় নি। পূর্ন জোয়ারের সময় ফেরিতে লোড আনলোড বন্ধ রাখতে হচ্ছে। তিনি দিন ঝড়ো হওয়া থাকায় ও ঘাট বিধস্ত হওয়ায় ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। শনিবার ফেরি চলাচল শুরু হলেও  জেয়ার শেষে ঘাট এলাকা থেকে পানি নেমে গেলে ফেরির কার্যক্রম শুরু করতে হচ্ছে বলে জানান ফেরির দায়িত্বে থাকা ম্যানেজার পারভেজ খান। এ ছাড়া কয়েক দিন ধরে ফেরি বন্ধ থাকায় দু পাড়ে তিন শতাধিক পন্যবাহী ট্রাক, কাভার্ড ভ্যান আটকা পড়ে। এতেও চরম দুর্ভোগ সৃস্টি হয় ফেরি ঘাট এলাকায়। অপরদিকে ইলিশা-মজুচৌধুরী রুটে, ইলিশা-ঢাকা রুটে লঞ্চ চলাচল শুরু হয়ে পন্টুনে যাত্রীদেও ভীড় পড়ে। একই সঙ্গে নদীতে মাছ ধরতে নেমে পড়েছে জেলেরা। ধসে যাওয়া বাধ মেরামত কাজ করছে পানি উন্নয়ন বোর্ড। জেলা প্রশাসনের তরফ থেকে ১ লাখ ৫৯ হাজার ২৬০ পরিবারকে দুর্গত ঘোষনা করা হয়েছে।  সর্বাধিক ক্ষতিগ্রস্তদের মধ্যে  ত্রান সামগ্রি বিতরণ করছেন ইউএনওরা।