অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, মঙ্গলবার, ২৩শে এপ্রিল ২০২৪ | ৯ই বৈশাখ ১৪৩১


৭ মাস বেতন নেই-পাসপোর্ট জব্দ, থানায় অভিযোগ ১৬১ বাংলাদেশির


বাংলার কণ্ঠ ডেস্ক

প্রকাশিত: ১৩ই মার্চ ২০২৪ বিকাল ০৪:২৮

remove_red_eye

১৯

বেতন ও কাজ না দেওয়ায় নিয়োগকর্তার বিরুদ্ধে পুলিশে অভিযোগে দায়ের করলেন মালয়েশিয়া প্রবাসী চার বাংলাদেশি শ্রমিক। কুয়ালালামপুরের সেন্তুল থানায় তারা এই অভিযোগ দায়ের করেন।

বাংলাদেশিদের অভিযোগ, গত সাত মাস ধরে নিয়োগকর্তা তাদের কাজ বা বেতন কিছুই দেয়নি, উপরন্তু তাদের পাসপোর্ট জব্দ করে রেখেছে।

 

এই প্রবাসী বাংলাদেশিরা জানান, তারা ১৬১ জনের একটি দল গত সাত মাস ধরে মালয়েশিয়ায় অবস্থান করলেও নিয়োগকর্তা তাদের কাজ যোগাড় করে দিতে ব্যর্থ হয়েছে।  

তারা জানান, মালয়েশিয়ায় যাওয়ার প্রথম দিন থেকে এ পর্যন্ত নিয়োগকর্তা তাদের কোনো কাজ বা বেতন দেয়নি। বর্তমানে তাদের কাছে খাবার কেনারও টাকা নেই। উল্টো নিয়োগকর্তা তাদের পাসপোর্ট আটকে রেখে ৬ হাজার রিংগিত দাবি করছে।       

এই প্রবাসীদের অভিযোগ জমায় সাহায্য করে প্রবাসী অধিকার নিয়ে কাজ করা স্থানীয় সংগঠন নর্থ-সাউথ ইনিশিয়েটিভ এবং পার্টি সোশালিস্ট মালয়েশিয়া। এই অধিকার কর্মীরা আশা প্রকাশ করেন, পুলিশ প্রবাসী বাংলাদেশিদের পাসপোর্ট ফিরে পেতে সাহায্য করবে।   

এর আগে ১৭১ জন বাংলাদেশি শ্রমিক থানায় অভিযোগ দিতে যাওয়ার পথে আটক হলে গত ১৬ জানুয়ারি দেশটির মানব সম্পদ মন্ত্রী বলেছিলেন, যে সকল নিয়োগকর্তা বিদেশি শ্রমিক নিয়ে আসবে ওই শ্রমিকদের পারিশ্রমিক দেওয়ার দায়িত্ব তাদের ওপরই বর্তাবে। পরে ওই নিয়োগকর্তাকে কাল তালিকাভুক্ত করা হয়।

 

সুত্র বাংলা নিউজ