অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, রবিবার, ২২শে মে ২০২২ | ৮ই জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯


লালমোহনে স্বপ্নের ঠিকানার অপেক্ষায় সাড়ে ৫ শত ভূমি ও গৃহহীন পরিবার


লালমোহন প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ৭ই এপ্রিল ২০২২ রাত ১২:৩৩

remove_red_eye

৩০

জাহিদ দুলাল II ভোলার লালমোহনের সাড়ে ৫ শত ভূমি ও গৃহহীন পরিবার কখনও কল্পনাও করতে পারেননি একটি পাকা ঘরে জীবন কাটাবেন। অন্যের জমিতে ঝুপড়ি ঘরে বসবাস করতেন তারা। অসহায় এসব ভূমি ও গৃহহীন মানুষের সেই কল্পনাকে বাস্তবে রূপ দিতে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এসব পরিবার পাচ্ছেন জমিসহ সেমিপাকা একক বসত ঘর। প্রতিটি ঘরের সঙ্গে থাকবে বিদ্যুৎ, সুপেয় পানি ও যাতায়াতের রাস্তার ব্যবস্থা। কেবল ঘরই নয় সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের মাধ্যমে এসব পরিবারগুলোকে করা হবে স্বাবলম্বীও।

আশ্রয়ণ প্রকল্প-২ এর আওতায় তৃতীয় পর্যায়ে প্রতিটি পরিবারকে নিজস্ব নামে ২ শতাংশ জমিসহ উপজেলার ৯টি ইউনিয়নের বিভিন্নস্থানে সেমিপাকা করে এসব ঘর করে দেয়া হবে। প্রতিটি ঘরের জন্য বরাদ্দ রয়েছে দুই লক্ষ ৫৯ হাজার ৫ শত টাকা।উপজেলার লর্ডহার্ডিঞ্জ ইউনিয়নে প্রধানমন্ত্রীর উপহারের ঘর পাওয়া কয়েকজন বলেন, চোখের সামনে নিজের স্বপ্নের বসত ঘর গড়ে উঠতে দেখছেন তারা। প্রধানমন্ত্রী তাদের জন্য বসত ঘর নির্মাণ করে দেয়ায় আনন্দের জোয়ার বইতে শুরু করেছে তাদের মধ্যে। ঘর পাওয়া এসব পরিবারগুলো কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি।


লালমোহন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) পল্লব কুমার হাজরা বলেন, উপজেলা  প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেয়া উপহারের এসব ঘর নির্মাণ কাজ তদারিক করা হচ্ছে। যাতে করে ঘরগুলোর গুনগতমান বজায় রাখা যায়। শিগগিরই এসব ঘর নির্মাণ শেষ করে প্রকৃত অসহায় ভূমি ও গৃহহীন পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।


এ ব্যাপারে ভোলা-৩ আসনের সংসদ সদস্য নূরুন্নবী চৌধুরী শাওন বলেন, অতীতের কোনো সরকার কখনই এসব ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য চিন্তা করেনি, তবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভূমি ও গৃহহীনদের মৌলিক চাহিদার আবাসনের মত অন্যতম এ চাহিদা নিজ উদ্যোগে পূরণ করে দিচ্ছেন। যার জন্য লালমোহন-তজুমদ্দিনবাসীর পক্ষ মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি।