অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, মঙ্গলবার, ২৩শে এপ্রিল ২০২৪ | ৯ই বৈশাখ ১৪৩১


ভোলায় মহানবী (সা.) কে কটুক্তিকারীর সর্বোচ্চ বিচারের দাবিতে বিক্ষোভ ও স্মারকলিপি প্রদান


বাংলার কণ্ঠ প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ২৮শে মার্চ ২০২৪ বিকাল ০৪:৫৭

remove_red_eye

১৯৪

এইচ আর সুমন : ভোলা জেলার তজুমদ্দিন উপজেলার এক হিন্দু ধর্মাবলন্বী বসু দাস কর্তৃক সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ মহামানব মহানবী হজরত মুহাম্মদ (স.) ও উম্মুল মুমিনীন হযরত আয়েশা (রা.) কে নিয়ে বিষোদগার ও কুরুচিপূর্ণ অবমাননাকর মন্তব্য করার প্রতিবাদে ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্য পরিষদের ডাকে সংগঠনের সভাপতি মাওলানা  আব্দুর রহমান খান তালুকদার সাহেবের সভাপতিত্বে খলিফাপট্রি মসজিদ চত্বরে প্রতিবাদ সভা ও বিক্ষোভ মিছিল এবং বসু দাস কে বিচারের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়ে জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করা হয়েছে। 
 
বৃহস্পতিবার যোহরের নামাজের শেষে শহরের খলিফাপট্টি জামে মসজিদ সামনে থেকে  ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্য পরিষদের ব্যানারে এই প্রতিবাদ সভা ও  বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়।ঘণ্টাব্যাপী প্রতিবাদ সভা ও বিক্ষোভ মিছিলে কর্মসূচিতে সর্বস্তরের মানুষ অংশ নেয়।
 
প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখেন ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্য পরিষদের সহ সভাপতি আলহাজ্ব মাওলানা মুফতী ইয়াছিন নবীপুরী। ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্য পরিষদের সাধারন সম্পাদক ও বাংলাদেশ জমিয়াতুল মোদাররেছীনের সম্পাদক এবং ভোলা দারুল হাদিস কামিল (স্নাতকোত্তর) মাদরাসার উপাধ্যক্ষ আলহাজ্ব মাওলানা মোহাম্মদ মোবাশ্বিরুল হক নাঈম। দৈনিক আজকের ভোলা সম্পাদক আলহাজ্ব মুহাম্মদ শওকাত হোসেন। ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্য পরিষদের সহ সভাপতি আলহাজ্ব মাওলানা আতাউর রহমান মোমতাজী। সহ সভাপতি আলহাজ্ব মুফতি আহাম্মদ উল্লাহ। ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্য পরিষদের যুগ্ম সম্পাদক ও মুখপাত্র মাওলানা মুহাঃ মিজানুর রহমান। ভোলা জেলা ঈমান আকিদা সংরক্ষণ কমিটির সভাপতি ও খলিফাপট্রি জামে মসজিদের খতিব আলহাজ্ব মাওলানা মোঃ মুজির উদ্দিন। ভোলা জেলা জাতীয় ইমাম সমিতির সভাপতি  আলহাজ্ব মাওলানা মীর মোঃ বেলায়েত হোসেন। ভোলা জেলা জাতীয় ইমাম সমিতির সম্পাদক ও মুসলিম ঐক্য পরিষদের সদস্য মাওলানা আব্বাছ উদ্দিন। 
 
বক্তাগন বলেন বিগত কয়েক বছর ধরে ভোলায় কিছু উগ্রপন্থি হিন্দু ধর্মাবলন্বী কর্তৃক আমাদের প্রিয় নবী হযরত মোহাম্মদ( স.) কে নিয়ে বিষোদগার ও কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করে যাচ্ছে যার কারনে ধর্মভীরু মানুষের মনে তীব্র ক্ষোভ সৃষ্টি হচ্ছে। মুসলমানদের ধর্মীয় অনুভূতিতে বার বার এই ধরনের আঘাত উদ্দেশ্য প্রনোদিত। বাংলাদেশ সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির উজ্জ্বল দৃষ্টান্তের দেশ। ৯২ ভাগ মুসলমানের দেশে এমন ঘটনা সারা বিশ্বের মুসলমানদেরকে ব্যথিত ও ক্ষু্দ্ধ করেছে।
 
ভোলা জেলা মুসলিম ঐক্য পরিষদের  নেতারা জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের কাছে স্মারকলিপি প্রদান করেন।