অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, রবিবার, ২৫শে জুলাই ২০২১ | ১০ই শ্রাবণ ১৪২৮


সোমবার থেকে সারাদেশে কঠোর লকডাউন


বাংলার কণ্ঠ ডেস্ক

প্রকাশিত: ২৫শে জুন ২০২১ রাত ১০:৪২

remove_red_eye

৫৯

বাংলার কণ্ঠ ডেস্ক : নভেল করোনাভাইরাসের (কোভিড ১৯) সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় সোমবার থেকে (২৮ জুন) সারাদেশে কঠোর লকডাউনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। কঠোর লকডাউনের আওতায় জরুরি সেবা ছাড়া বাকি সব সরকারি-বেসরকারি অফিস বন্ধ থাকবে। জরুরি পণ্য পরিবহন এবং চিকিৎসাসেবায় ব্যবহৃত যানবাহন ছাড়া বাকি সব যানবাহনও বন্ধ থাকবে।

শুক্রবার (২৫ জুন) রাতে সরকারের প্রধান তথ্য কমকর্তা সুরথ কুমার সরকার সারাবাংলাকে এ সিদ্ধান্তের কথা নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, ২৮ জুন থেকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত সারাদেশে কঠোর লকডাউন পালন করা হবে। এ সময় জরুরি পরিষেবা ছাড়া সরকারি-বেসরকারি অফিস বন্ধ থাকবে। এ ছাড়া জরুরি কারণ ছাড়া কেউ বাইরে বের হতে পারবেন না।

তিনি আরও জানান, জরুরি পণ্যবাহী ব্যতীত সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ থাকবে। অ্যাম্বুলেন্স ও চিকিৎসা সংক্রান্ত কাজে শুধু যানবাহন চলাচল করতে পারবে। গণমাধ্যম এই কঠোর লকডাউনের আওতার বাইরে থাকবে।

শনিবার (২৬ জুন) মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে এ কঠোর লকডাউন সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হবে বলেও জানান প্রধান তথ্য কর্মকর্তা।

এর আগে মার্চ থেকে দেশে করোনাভাইরাস সংক্রমণ পরিস্থিতির অবনতি হতে থাকলে ৫ এপ্রিল থেকে সারাদেশে নানা ধরনের বিধিনিষেধ জারি করে সরকার। পরিস্থিতির উন্নতি না হলে ১৪ এপ্রিল থেকে ঘোষণা করা হয় কঠোর লকডাউন। এর আওতায় গণপরিবহন, দোকানপাট, শপিং মল, হোটেল-রেস্তোরাঁ সবই বন্ধ ছিল। তবে পরবর্তী সময়ে পর্যায়ক্রমে গণপরিবহন চলাচলের অনুমতি দেওয়া হয়, খুলে দেওয়া হয় দোকানপাট ও শপিং মল এবং হোটেল-রেস্তোরাঁ। বলতে গেলে ধীরে ধীরে প্রায় সব বিধিনিষেধই তুলে নেওয়া হয়।

সবশেষ গত ১৬ জুন মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে জারি করা এক নির্দেশনায় বিধিনিষেধের মেয়াদ বাড়ানো হয় ১৫ জুলাই পর্যন্ত। তবে এবারে সব ধরনের সরকারি, বেসরকারি, আধাসরকারি, স্বায়ত্তশাসিত ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা রাখার অনুমতি দেওয়া হয়। দেশের সব পর্যটনকেন্দ্র এবং সামাজিক-রাজনৈতিক, সাংস্কৃতিক অর্থাৎ জনসমাগম হয় এমন অনুষ্ঠান বন্ধ রাখার আগের সিদ্ধান্ত বহাল রাখা হয়।

এর মধ্যে অবশ্য করোনা সংক্রমণের হার ব্যাপক হারে ঊর্ধ্বমুখী হওয়ায় ২২ জুন থেকে ৩০ জুন পর্যন্ত ঢাকা বিভাগের সাত জেলায় লকডাউন ঘোষণা করে সরকার। লকডাউনের আওতায় থাকা জেলাগুলো হলো—নারায়ণগঞ্জ, মুন্সিগঞ্জ, মানিকগঞ্জ, শরীয়তপুর, রাজবাড়ি, গাজীপুর ও গোপালগঞ্জ। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে জারি করা এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, করোনাভাইরাসের সংক্রমণের বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনায় ঢাকা বিভাগের সাত জেলায় সব ধরনের কার্যক্রম ও জনসাধারণের চলাচল ২২ জুন সকাল ৬টা থেকে ৩০ জুন মধ্যরাত পর্যন্ত বন্ধ থাকবে।