অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, রবিবার, ২০শে জুন ২০২১ | ৬ই আষাঢ় ১৪২৮


লালমোহনে ঘুর্ণিঝড় ইয়াস মোকাবেলায় ১২২টি আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত


লালমোহন প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২৪শে মে ২০২১ রাত ১০:৪৯

remove_red_eye

৫৫

লালমোহন প্রতিনিধি : উপক‚লীয় জেলা ভোলার লালমোহন উপজেলায় আসন্ন ঘুর্ণিঝড় ইয়াস (যশ) মোকাবেলায় ১২২টি আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুত রাখা হয়েছে। এর মধ্যে ৮৫টি ঘুর্ণিঝড় আশ্রয়কেন্দ্র এবং ৩৭টি মাধ্যকি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ভবন রয়েছে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আল-নোমানের সভাপতিত্বে আজ সোমবার উপজেলা দুর্যোগ প্রস্তুতি কমিটির সভায় এসব আশ্রয়কেন্দ্র প্রস্তুতসহ ঘূর্ণিঝড় মোকাবেলায় প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়। এর মধ্যে লালমোহনের মেঘনা ও তেঁতুলিয়া নদীর মধ্যে বিচ্ছিন্ন চরগুলোর বাসিন্ধাদের নিরাপদে সরিয়ে আনার জন্য ট্রলার, স্পীড বোর্টের ব্যবস্থা করা হয়েছে। আশ্রয়কেন্দ্রগুলো পরিস্কার পরিচ্ছন্ন করাসহ সময় মত খুলে দেওয়ার ব্যবস্থা করার জন্য নির্দেশ দেওয়া হয়। আশ্রয়কেন্দ্রে শুকনো খাবার এবং খিঁচুড়ি রান্নার ব্যবস্থা করা হয়।  
সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ গিয়াস উদ্দিন আহমেদ। এসময় বক্তব্য রাখেন উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আবুল হাসান রিমন, মাসুমা বেগম, উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা সোহাগ ঘোষ, ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কাশেম মিয়া, গোলাম মোস্তফা, আবু ইউসুফ, ফরহাদ হোসেন মুরাদ প্রমূখ।
সভায় বলা হয়, ঘূর্ণিঝড় পরবর্তী সময়ে প্রতিটি ইউনিয়নে তাৎক্ষণিক ক্ষয়ক্ষতি মোকাবেলার জন্য সবাইকে সচেতন থাকতে হবে। উপক‚লীয় এলাকায় সতর্কবার্তা জারী করার কার্যক্রম চলছে। প্রতিটি ইউনিয়নে মেডিকেল টিম গঠনেরও প্রস্তুতি চলছে।