অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, শনিবার, ১৭ই এপ্রিল ২০২১ | ৪ঠা বৈশাখ ১৪২৮


লালমোহনে প্রতিবন্ধীদেরকে নিয়ে বঙ্গবন্ধুর জন্মদিনের কেক কাটলেন এমপি শাওন


লালমোহন প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ১৭ই মার্চ ২০২১ রাত ১১:৫০

remove_red_eye

৬৬




লালমোহন ও তজুমদ্দিন প্রতিনিধি : জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০১তম জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষে প্রতিবন্ধীদেরকে নিয়ে কেক কেটেছেন ভোলা-৩ আসনের সংসদ সদস্য নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন। মঙ্গলবার সকালে উপজেলা পরিষদের আয়োজনে আবুগঞ্জ বাজার এলাকায় “ডাস বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী বিদ্যালয়ের” শিক্ষার্থীদের কে নিয়ে কেক কাটেন তিনি।
এর আগে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সে জাতির জনকের প্রতিকৃতিতে পূষ্পার্ঘ অর্পন করেন এমপি নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন।
পরে লালমোহন বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধু কর্ণার উদ্বোধন করেন তিনি।
এসময় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এমপি শাওন বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঋণ শোধ হওয়ার নয়। দেশ ও দেশের মানুষের মুক্তির জন্য জীবনের গুরুত্বপূর্ণ সময়গুলো পাকিস্তানীদের কারাগারে কাটিয়েছিলেন তিনি। দেশের মুক্তির তরে পাকিস্তানীদের সাথে কোন আপোষ করেননি। বঙ্গবন্ধু ত্যাগের মধ্য দিয়েই আমরা স্বাধীনতা অর্জন করেছি। তাই বঙ্গবন্ধু মানেই বাংলাদেশ। বঙ্গবন্ধু কর্ণার স্থাপনের মধ্য দিয়ে শিক্ষার্থীরা জাতির জনকের জীবনাদর্শ জানবে।
তিনি আরও বলেন, আজ জাতির জনকের অবর্তমানে তাঁরই সুযোগ্য কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশ ও দেশের মানুষের জন্য নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ গিয়াসউদ্দিন আহমদ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার আল নোমান, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (লালমোহন সার্কেল) রাসেলুর রহমান, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ফখরুল আলম হাওলাদার, ভাইস চেয়ারম্যান আবুল হাসান রিমন, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার রফিকুল ইসলামসহ অন্যান্যরা। অপর দিকে বুধবার সকালে তজুমদ্দিন উপজলো মিলনায়তনে বঙ্গবন্ধুর  ১০১তম জন্মদিন ও জাতিয় শিশু দিবসের আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক  অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ভোলা-৩ আসনের সাংসদ আলহাজ্ব নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন বলেছেন, বঙ্গবন্ধুর জন্ম না হলে বাংলাদেশের জন্ম হতো না। তাকে বার বার কারাগারে অন্যায় ভাবে আটক রাখা হয়েছে। কারাগারকে সংসার বানিয়ে দেশকে মুক্ত করেছেন বঙ্গবন্ধু। তিনি নিজের নিশ্চিত মৃত্যু যেনেও দেশের র্স্বাথে ছিলেন আপোষহীন। বঙ্গবন্ধুর ঋন কখনো শোধ হবার নয়। নতুন প্রজন্মের কাছে স্বাধীনতার চেতনা ও সঠিক ইতিহাস তুলে ধরতে হবে।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার পল্লব কুমার হাজরা’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তৃতা রাখেন উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি ফখরুল আলম জাহাঙ্গীর, সম্পাদক ফজলুল হক দেওয়ান, ওসি এসএম জিয়াউল হক, মুক্তিযোদ্ধা মোফাজ্জল হোসেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মহিউদ্দনি পোদ্দার, আ'লীগ সহ সভাপতি তৈয়বুর রহমান,  সাংগঠনিক সম্পাদক অধ্যক্ষ হেলালউদ্দিন সুমন, উপজেলা সমাজ সেবা অফিসার সিদ্দিকুর রহমান, পল্লী দারিদ্র বিমোচন অফিসার মনোরঞ্জন দে প্রমুখ।