অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, শনিবার, ১৭ই এপ্রিল ২০২১ | ৪ঠা বৈশাখ ১৪২৮


চরফ্যাশন দুই কাউন্সিলর প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ আহত -৭


চরফ্যাসন প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২৪শে ফেব্রুয়ারি ২০২১ রাত ১১:২০

remove_red_eye

১৫৯



পাল্টাপাল্টি  অভিযোগ

বাংলার কণ্ঠ প্রতিবেদক : ভোলার চরফ্যাশনে পৌর নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দুই কাউন্সিলর পদ প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে উভয় পক্ষের ৭জন আহত হয়েছে। বুধবার (২৪ ফেব্রæয়ারী) সন্ধ্যায় পৌরসভা ২নং ওয়ার্ড কাইমুদ্দিন মোড় এলাকায় এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। আহতরা হলেন, লাভলী (২৫) রিয়াজ (৩৫) আলী (২৫) সোলাইমান (৩৬) কামরুল ইসলাম (৪২) আলমগীর বাতান (৪৩) ও রুবেল (৩০)। এঘটনায় ওই এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।
২নং ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিলর ও বর্তমান কাউন্সিলর পদ প্রার্থী নজরুল ইসলাম কিষাণ (পাঞ্জাবী প্রতিক) অভিযোগ করে বলেন,পৌরসভার নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আদিপত্য বিস্তারে প্রতিপক্ষ কাউন্সিলর প্রার্থী (পানির বোতল প্রতিক) মফিজ মেম্বার,আলমগীর বাতান ও নিরব ফকিরসহ প্রায় ১০ থেকে ১২জন মিলে আমার বাড়ির দরজায় আমার ভাই কামরুলকে একা পেয়ে মারধর করে। এসময় আমার ছোট ভাইয়ের স্ত্রী লাভলী দরজায় পানি আনতে গেলে তাকেও টানা হেছরা করে মারধর করে। এসময় আলী উদ্ধার করতে গেলে তাকেও মারধর করে মফিজসহ তার লোকজন। আহত কামরুল ইসলাম বলেন মেয়র পদ প্রার্থীর নৌকা প্রতিকের উঠান বৈঠক শেষে বাড়ি আসার পথে মফিজসহ তার লোকজন আমাকে মারধর করে পকেটের নগদ টাকা পয়সা ও মোবাইল নিয়ে যায়। এ বিষয়ে চিকিৎসাধীন লাভলী বলেন, আমি বাড়ির দরজায় সন্ধ্যার সময় টিউবওয়েল থেকে পানি আনতে গেলে আমাকে অপরিচিত কিছু লোকজন টানা হেছরা করে বাড়ি সংলগ্ন রাস্তার উপরে নিয়ে মারধর করে। এসময় আমার স্বামী রিয়াজ উদ্দিন ও আমার আÍীয় সোলাইমান আমাকে উদ্ধার করে চরফ্যাশন হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসলে তাদেরকেও মফিজ মেম্বার ও তার লোকজন মারধর করে। এ বিষয়ে পাল্টা অভিযোগ করে নিরব ফকির বলেন,বুধবার বিকাল ৫টার সময় পৌর মেয়র প্রার্থীর নৌকা প্রতিকের ৩নং ওয়ার্ডের নায়েবের বাড়ির উঠান বৈঠক শেষে হোন্ডা বহরের একটু পিছনে থাকা অবস্থায় আলমগীর বাতানের উপর কাউন্সিলর প্রার্থী নজরুল ইসলাম কিষাণ তার ভাই কামরুল,আমরুল ও রিয়াজসহ আরও অনেকে মিলে লাঠিসোটা নিয়ে হামলা করে। এসময় আলমগীর বাতান (৪২) ও রুবেল হোসেন (৩০) আহত হয়। এবিষয়ে কাউন্সিলর পদ প্রার্থী মফিজ মেম্বারকে একাধীকবার ফোন দিয়েও পাওয়া যায়নি। তবে চরফ্যাশন থানার অফিসার ইনচার্জ মনির হোসেন মিয়া বলেন,দুই পক্ষের সংঘর্ষে উভয় গ্রæপের লোকজন আহত হয়েছে। কোনো পক্ষই থানায় অভিযোগ করেনি। নিরাপত্তায় ঘটনাস্থলে পুলিশের টহল রয়েছে।