অনলাইন সংস্করণ | ভোলা, শুক্রবার, ৩রা জুলাই ২০২০ | ১৮ই আষাঢ় ১৪২৭


লালমোহনে বিকাশ ব্যবসায়ীর উপর বর্বর নির্যাতন


লালমোহন প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২৯শে জুন ২০২০ রাত ০৯:৪৮

remove_red_eye

৪৭



লালমোহন  সংবাদদাতা  : ভোলার লালমোহনে নিরব হোসেন (৩৫) নামের এক বিকাশ ব্যবসায়ীর উপর বর্বর হামলা চালিয়ে তার তিনটি দাঁত ভেঙ্গে ফেলেছে দুর্বৃত্তরা। হামলার শুরুতে তাকে ঝাঁপটে ধরে গলায় গামছা পেচিয়ে ফাঁস দিয়ে দুর্বৃত্তরা বলে ‘শালা আইজই তোর শ্যাষ’। এ কথা বলতে বলতেই চলে নির্মম নির্যাতন। পরে ওই ব্যবসায়ীর গগন বিদারী আর্তচিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে এলে দুর্বৃত্তরা রাঁেতের অন্ধকারে দৌড়ে পালায়। পালানোর সময় দুর্বৃত্তরা নিরব হোসেনের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের চাবির তোড়া এবং তাকে বিবস্ত্র করে পড়নের লুঙ্গি খুলে নিয়ে যায়। রবিবার (২৯ জুন) রাত ১২টার দিকে উপজেলার বদরপুর ইউনিয়নের জনতা বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে লালমোহন হাসপাতালে ভর্তি করে। পরে অবস্থার অবনতি ঘটলে তাকে ভোলা সদর হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। ঘটনার শিকার নিরব হোসেন, জনতা বাজারের বিকাশ ও তেল-গ্যাসের ব্যবসায়ী এবং সে বদরপুর ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের আলী আহাম্মদ চোকিদারের ছেলে।
নিরব হোসেন জানান, প্রতিদিনের মতো সে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে ঘুমানের জন্য রাতে বাড়ি থেকে খাওয়া দাওয়া সেরে বাজারে যাচ্ছিলেন। বাজারের কাছাকাছি গেলে রাস্তার কিনারে অন্ধকারে ওৎ পেতে অবস্থান নেয়া ৪-৫ জন দুর্বৃত্ত তাকে ঝাঁপটে ধরে গলায় গামছা লাগিয়ে ফাঁস দিয়ে টেনে হিচঁড়ে বাগানের মধ্যে নিয়ে যায়। এসময় বলে ‘শালা আইজই তোর শ্যাষ’। এ কথা বলতে বলতেই চলে অমানুষিক নির্যাতন। এর মধ্যে দুর্বৃত্তদের কণ্ঠশব্দ অনুমান করে দু’জনকে চিনতে পেরেছেন নিরব হোসেন। নিরব হোসেন আরো জানান, দোকানের মধ্যে সব সময় জরুরী প্রয়োজনে নগদ টাকা থাকে। এ টাকা লুটে নেয়ার জন্যই দুর্বৃত্তরা এ হামলা করেছে। তাদের টার্গেট ছিলো আমার কাছ থেকে চাবির তোড়া নিয়ে প্রতিষ্ঠান খুলে টাকা লুট করা। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান নিরব হোসেন।
লালমোহন থানার ওসি মীর খায়রুল কবীর বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে এবং আসামীদের ধরার চেষ্টা চলছে।