ভোলা, মঙ্গলবার, ৩১শে মার্চ ২০২০ | ১৭ই চৈত্র ১৪২৬

চরফ্যাসন প্রতিনিধি


৯ই মার্চ ২০২০ রাত ০৮:৫৮




বোরহানউদ্দিনে নির্বাচন অফিসের সহকারীর বিরুদ্ধে সাংবাদিক সম্মেলন

চরফ্যাসন উপজেলা



চরফ্যাশন প্রতিনিধি : প্রেমের ফাঁদে ফেলে বিয়ে করে স্ত্রীকে অস্বীকার ও অশ্লীল ভিডিও ইন্টারনেটে ছেড়ে দেওয়ার হুমকি দেওয়ার অভিযোগে বোরহানউদ্দিন নির্বাচন অফিসের অফিস সহকারী পৌরসভা ৩নং ওয়ার্ডের মো. জালাল মাস্টারের ছেলে মনির হোসেন লোকমানের বিরুদ্ধে স্ত্রী ছালমা বেগম সাংবাদিক সম্মেলন করেছেন। রবিবার সকাল সাড়ে ১০টায় চরফ্যাশন প্রেসক্লাবে এ সংবাদ সম্মেলন করেন তিনি। সংবাদ সম্মেলনে ভুক্তভোগী ওই নারী বলেন, ইস্তিয়াক আহমেদ ওরোফে লোকমান চরফ্যাশন নির্বাচন অফিসে ২০১৯ সালে চাকরি করার সময় আমার জাতীয় পরিচয় পত্র সংশোধন করার সময় তিনি আমার প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জমা রেখে আমার ফোন নাম্বার নেন। তিনি আমার সাথে ফোনে কথা বলে প্রেমের প্রস্তাব দিলে আমি রাজি না হওয়ায় আমাকে বিয়ের প্রস্তাব দেয় বিবাহের প্রস্তাবে আমি রাজি হলে ২০১৯ সালে তিনি আমাকে ঢাকা শ্যামলীতে তার বন্ধুর বাসায় নিয়ে আমাকে বিয়ে করেন। পরে আমি কাবিন রেজিস্ট্রীর কথা বললে চরফ্যাশন এসে আমার পরিচয় পত্র ঠিক করে আত্মীয় স্বজনের উপস্থিতিতে কাবিন রেজিস্ট্রী করবেন। এভাবে ঢাকাতে আমাকে নিয়ে কিছুদিন থাকার পরে সে আমাকে আমার বাপের বাড়ি পাঠিয়ে দেয়। কিছুদিন পরে কাবিনের বিষয়ে তাকে বলতেই আমাদের অন্তরঙ্গ ছবি ও ভিডিও ইন্টারনেটে ছেরে দেওয়ার হুমকি দেন। আমি নিরুপায় হয়ে লোকমানের পিতা ও তার চাচাকে বিষয়টি জানালে তারা আমাকে কোনো পাত্তাই দেননি। আমি বিষয়টি আমার স্বজন ও গণ্যমান্য ব্যাক্তিদের জানাই। তারা আমাকে আইনের আশ্রয় নিতে পরামর্শ দিলে আমি নিরুপায় হয়ে ভোলা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আদালতে প্রতারক লোকমানের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেছি। মামলা নং ১১৫/২০২০ বর্তমানে তার বিরুদ্ধে মামলা করায় লোকমান আমাকে বিভিন্নভাবে ভয়ভিতি প্রদান করছেন। আমি এর ন্যায় বিচার চাই।